Teknaf News24:: টেকনাফ নিউজ২৪ এ আপনাকে স্বাগতম
সংবাদ শিরোনাম :
«» প্রদীপ, লিয়াকত সহ সিনহা হত্যায় জেলে যাওয়া ৭ পুলিশ বরখাস্ত «» তদন্তে কক্সবাজারের এসপির নাম এলে তার বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা «» ৩১ হাজার ইয়াবাসহ র‍্যাবের হাতে রামুর আলাউদ্দিন আটক «» সিনহা হত্যায় ওসি প্রদীপসহ সাত আসামি কারাগারে «» এখন থেকে কক্সবাজারে সেনা ও পুলিশের যৌথ টহল «» ওসি প্রদীপ কুমার ও তার স্ত্রীর সম্পদ অনুসন্ধানে দুদক «» সিনহা হত্যা মামলার আসামি ওসি প্রদীপ কক্সবাজার আদালতে «» টেকনাফ থানার ওসি’র দায়িত্বে এবিএম এস. দোহা «» ওসি প্রদীপ, লিয়াকতসহ ৯ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা «» ওসি প্রদীপ ইন্সপেক্টর লিয়াকত সহ ৯ পুলিশের বিরুদ্ধে সিনহার বোনের মামলা, তদন্তে র‌্যাব «» অনলাইন নিউজ পোর্টালের নিবন্ধন নিয়ে উদ্বেগের কারণ নেই : তথ্যমন্ত্রী «» মেজর সিনহা হত্যাকাণ্ড: যৌথ সংবাদ সম্মেলনে যা বললেন সেনাপ্রধান ও আইজিপি «» করোনায় একদিনে আরও ৫০ জনের প্রাণহানি «» মামলা করার ‘প্রস্তুতি নিচ্ছে’ সিনহার পরিবার «» পুলিশের গুলিতে সাবেক সেনা কর্মকর্তা নিহতের ঘটনার তদন্ত শুরু «» কোভিড-১৯ এর বিস্তার রোধে দোকান খোলা রাত ৮টা পর্যন্ত, বাড়ির বাইরে ১০টার পর নয় «» জুলাই মাসে ৫০ কোটি টাকার চোরাচালান ও মাদকদ্রব্য জব্দ করেছে বিজিবি «» ৭ আগস্ট থেকে আবুধাবি-ঢাকা রুটে এয়ার অ্যারাবিয়ার ফ্লাইট «» আল-জাজিরার মালয়েশিয়া কার্যালয়ে পুলিশি অভিযান «» সিনহার মাকে প্রধানমন্ত্রীর ফোন, বিচারের আশ্বাস «» বনানীর সামরিক কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত মেজর (অব.) সিনহা «» মাদক ব্যবসায়ীদের বিষাক্ত ইনজেকশনে মারার চিন্তা ফিলিপাইনের «» দুর্নীতির দায়ে মালয়েশিয়ার সাবেক প্রধানমন্ত্রী রাজাকের ১২ বছরের কারাদণ্ড «» কমিউনিটি ব্যাংক শুধু পুলিশের নয়, দেশের জনগণের ব্যাংক ড. বেনজীর «» উখিয়া-টেকনাফের নব্য কোটিপতিরা নজরদারিতে ! «» ইয়াবা বান্ধব ইউনিয়ন উখিয়ার পালংখালী! «» গরুর ওজন ৩৫ মণ! «» খারাংখালী সীমান্তে মাদকের চালান ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে গোলাগুলিতে নিহত-৪ ইয়াবা, অস্ত্র ও বুলেট উদ্ধার «» নয়াবাজারে ক্ষমতাসীন দলের ছত্রছায়ায় ইয়াবা কারবার! «» প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ

অবশেষে টনক নড়েছে :ত্রুটিপূর্ণ বিল সংশোধন করা হচ্ছে: বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী

করোনাভাইরাসে সৃষ্ট পরিস্থিতির মধ্যে বিদ্যুতের ভুতুড়ে বিল নিয়ে গ্রাহকদের মধ্যে যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে সেটি নিরসনে দ্রুত ত্রুটিপূর্ণ বিল সংশোধন করা হবে জানিয়েছেন বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ। একইসঙ্গে বকেয়া বিদ্যুৎ বিল আদায়ে ৬ দফা পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

সোমবার জাতীয় সংসদে সাংসদ মাহফুজুর রহমানের এক প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন। চট্টগ্রাম-৩ আসনের সংসদ সদস্য মাহফুজুর রহমানের প্রশ্নের জবাবে বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী সংসদকে জানান, বাংলাদেশে কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হওয়ায় সরকার ২৬ মার্চ থেকে দেশব্যাপী সাধারণ ছুটি ঘোষণা এবং এলাকাভিত্তিক লকভাউন কার্যকর করে। বিদ্যুৎ গ্রাহকদের অসুবিধার কথা বিবেচনা করে আবাসিক গ্রাহকদের ফেব্রুয়ারি, মার্চ, এপ্রিল ও মে মাসের বিদ্যুৎ বিল সারচার্জ ছাড়া ৩০ জুনের মধ্যে পরিশোধের সুযোগ দেয়া হয়। ফলে অধিকাংশ গ্রাহক বিল পরিশোধ হতে বিরত থাকায় বিপুল পরিমাণে বকেয়ার সৃষ্টি হয়েছে।

বকেয়া বিল আদায়ে সরকারের কার্যক্রম প্রসঙ্গে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘বকেয়া বিল আদায়ের লক্ষ্যে যেসব কার্যক্রম নেয়া হয়েছে, তা হলো– কয়েক মাসের ইউনিট একত্র করে একসঙ্গে অধিক ইউনিটের বিল না করা, মাসভিত্তিক পৃথক পৃথক বিদ্যুৎ বিল তৈরি করা, একসঙ্গে বেশি ইউনিটের বিল করে উচ্চ ট্যারিফ চার্জ না করা, ত্রুটিপূর্ণ বা অতিরিক্ত বিল দ্রুত সংশোধনের ব্যবস্থা করা, মে মাসের বিদ্যুৎ বিল (যা জুন মাসে তৈরি হচ্ছে) মিটার দেখে সঠিকভাবে প্রস্তুত করা এবং মোবাইল, বিকাশ, জি-পে, রবিক্যাশ, অনলাইনে ঘরে বসে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধের সুযোগ সৃষ্টি।’

এর আগে গত ২৫ জুন বিদ্যুৎ বিভাগ ও এর আওতাধীন দপ্তর ও কোম্পানির বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচি (এডিপি) বাস্তবায়ন ও অগ্রগতি পর্যালোচনা সভায় অতিরিক্ত বিল করার সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে আগামী সাত দিনের মধ্যে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে সিদ্ধান্ত হয়।

(10) বার এই নিউজটি পড়া হয়েছে

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।